বিদেশি বিনিয়োগ আনতে বিশেষ দূত মাতলুব আহমাদ
Wednesday, 11th May , 2016, 07:31 pm,BDST
Print Friendly, PDF & Email

বিদেশি বিনিয়োগ আনতে বিশেষ দূত মাতলুব আহমাদ



ইরান থেকে ফিরে আলীমুজ্জামান হারুন, ১১ মে ঢাকা: বিদেশি বিনিয়োগ এনে দেশকে অর্থনৈতিকভাবে সয়ংসম্পূর্ণ করতে বাংলাদেশের বিশেষ দূত হিসেবে কাজ করে যাচেছন এফবিসিসিআই’র প্রেসিডেন্ট আবদুল মাতলুব আহমাদ। বিদেশি বিনিয়োগকারীদের দেশে বিনিয়োগে আকৃষ্ট করতে পৃথিবীর বিভিন্ন প্রান্তে চষে বেড়াচ্ছেন তিনি।

তার এই আহ্বানে সাড়া দিয়ে বিভিন্ন দেশের ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদল সফরে এসে বাংলাদেশে বিনিয়োগের আগ্রহ দেখাচ্ছেন। তার দক্ষতা ও বিচক্ষণতার কারণে বিদেশি বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশের ব্যবসা-বান্ধব পরিবেশের বিষয়ে আস্বস্ত হয়ে স্বীকার করেছেন, বাংলাদেশ বিনিয়োগের সেরা জায়গা।

তার মোহনীয় নেতৃত্বের কারনে ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদলগুলো বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগের আশ্বাস দিয়েছেন। ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠনের সভাপতি হিসেবে আবদুল মাতলুব আহমাদের দায়িত্ব গ্রহণের পর থেকে ইতোমধ্যে বিশ্বের ২০-২৫টি দেশের ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদল বাংলাদেশ সফর করেছে। তারা দেশে যৌথ বিনিয়োগের বিষয়ে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।

বাংলাদেশ থেকেও তার নেতৃত্বে অনেক দেশে ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদল সফরে গেছেন। এতে দেশে বিনিয়োগের অবারিত দ্বার খুলে যাচ্ছে।

 

বিদেশি বিনিয়োগকারীদের দৃষ্টিতে বাংলাদেশ একটি অর্থনৈতিক সম্ভাবনাময় দেশ। সফল ব্যবসায়ী মাতলুব আহমাদ এফবিসিসিআই’র সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণের পর থেকে তার নির্বাচনী অঙ্গীকার পূরণে দিন রাত কাজ করে যাচ্ছেন। সরকারের কাছ থেকে ব্যবসায়ীদের বিভিন্ন দাবি দাওয়া আদায় করে দিচ্ছেন। তার দৃষ্টিতে ব্যবসায়ীরা দেশের উন্নয়নের চালিকাশক্তি। তার অনুরোধের প্রেক্ষিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও ব্যবসা-বাণিজ্য সম্প্রসারণে অতীতের অনেক বাধা দুর করে দিয়েছেন। এর মাধ্যমে বর্তমান সরকার যে ব্যবসা বান্ধব তা প্রমাণীত হয়েছে। বিগত বাজেটগুলোর মতো আসন্ন বাজেটও বিনিয়োগ ও ব্যবসায় বান্ধব হবে বলে ব্যবসায়ীদের বিশ্বাস।

 

 

গত ৫ মে থেকে একটি উচ্চ পর্যায়ের ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদল নিয়ে ইরান সফর করেন মাতলুব আহমেদ। এই প্রতিনিধিদলের সফরসঙ্গী হিসেবে এই প্রতিবেদকও ছিল। এই সফর ছিল সফল। বাংলাদেশি ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বৈঠকে ইরানী ব্যবসায়ীরা বাংলাদেশের বিষয়ে ইতিবাচক মনোভাব প্রদর্শন করে বিনিয়োগে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। বিশেষ করে তারা সিলিন্ডার গ্যাস ও এলএনজি, তেল শোধনাগার, মেট্রোরেল, ওষুধ, সিমেন্ট, প্লাস্টিক শিল্পসহ বেশ কিছু খাতে যৌথ উদ্যোগে বিনিয়োগ করতে চাচ্ছেন। এর বাইরে কৃষিভিত্তিক শিল্প ও পর্যটন খাতেও বিনিয়োগের আগ্রহ আছে তাদের। বাংলাদেশে এই মুহূর্তে তাদের ৮শ কোটি টাকা বিনিয়োগের লক্ষ্য রয়েছে।  বৈঠক করেন মাতলুব আহমাদ তেহরান চেম্বারের শীর্ষ ব্যবসায়ীদের সাথে। thran chember

thhran

সফরের শেষ দিনে ১০ মে বাংলাদেশের ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদলের সম্মানে ইরানে নিযুক্ত বাংলাদেশ রাষ্ট্রদূত নৈশভোজের আয়োজন করেন। নৈশ ভোজ অনুষ্ঠানে এফবিসিসিআই’র সভাপতি আব্দুল মাতলুব আহমাদ বলেন, ইরানের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য বাড়ানোর সুবর্ণ সুযোগ তৈরি হয়েছে। খুব শিগগিরই দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্যিক সম্পর্কের ক্ষেত্রে নয়া দিগন্তের সূচনা হতে যাচ্ছে।

তিনি বলেন, ইরানিদের সার্বিক আচরণ দেখে মনে হয়েছে তাদের সঙ্গে বাণিজ্য বাড়ানো সম্ভব। প্লাস্টিকের কাঁচামাল ও তরল গ্যাস সহ বিভিন্ন পণ্য ইরান থেকে আমদানি করা সম্ভব। আমরা এসব পণ্য আমদানি করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এরইমধ্যে এ বিষয়ে দুইটি সমঝোতা স্মারক সই হয়েছে।

তিনি বলেন, ইরান যে বিভিন্ন ক্ষেত্রে এতো উন্নতি করেছে তা এখানে না আসলে বুঝতেই পারতাম না। শিল্প ক্ষেত্রে ইরানের অগ্রগতি প্রশংসনীয়।

এই ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদল ইরানের বড় বড় গ্যাস সিলিন্ডার তৈরির প্লান্ট পরিদর্শন করে বাংলাদেশে বিনিয়োগের বিষয়ে মতবিনিময় করেছে। প্লাস্টিক পণ্য তৈরির কাঁচামাল ইরান থেকে আমদানি করার বিষয়েও ইরানী ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বৈঠক করেছে। পাশাপাশি দুটি বিখ্যাত ইরানী বিশ্ববিদ্যালয়ও পরিদর্শন করেছে দলটি। এফবিসিসিআই’র পরিচালক শেখ ফজলে ফাহিম ও এনাম মেডিকেল কলেজ এন্ড হসপিটালের চেয়ারম্যান সাংসদ এমডি এনামুর রহমান দুটি বিশ্ববিদ্যালয় পরিদর্শন করে শিক্ষার গুণগত মান সম্পর্কে অবহিত হয়েছেন। তাদের শিক্ষার মানে তারা মুগ্ধ হয়ে বাংলাদেশে যৌথ বিনিয়োগে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার বিষয়ে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।

 

বাংলাদেশের বাণিজ্যিক প্রতিনিধি দলের সদস্যরা তেহরানে ইরানের “অয়েল শো-২০১৬” এবং “২১তম আন্তর্জাতিক অয়েল, গ্যাস অ্যান্ড পেট্রোক্যামিকেল এক্সিবিশন” পরিদর্শন করেন। এক্সিবিশন পরিদর্শনের পর কয়েক জন বাংলাদেশি ব্যবসায়ী বলেছেন, ইরানের সঙ্গে বাণিজ্য বাড়ানোর উজ্জ্বল সম্ভাবনা রয়েছে। এলএনজিসহ পেট্রোক্যামিকেল পণ্য আমদানির পাশাপাশি শিক্ষা, প্রযুক্তি ও চিকিৎসা ক্ষেত্রেও সহযোগিতা জোরদার করা সম্ভব।

 

এছাড়া ইরানের শিল্প, খনি ও বাণিজ্যমন্ত্রীর উপদেষ্টা মোহাম্মদ রেজা মওদুদী ও তেহরান চেম্বারের ব্যবসায়ী নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন আবদুল মাতলুব আহমেদের নেতৃত্বাধীন প্রতিনিধি দল। মটরগাড়ী তৈরির প্রতিষ্ঠান সাইফা’ও পরিদর্শন করে  এফ বিসিসিঅাইর সভাপতি  মাতলুব অাহমাদ।

fbcci

এফবিসিসিআই’র সভাপতি মাতলুব আহমাদের নেতৃত্বাধীন ২১ সদস্যের বাণিজ্যিক প্রতিনিধি দলে ছিলেন, শেখ ফজলে ফাহিম (ডিরেক্টর ও ম্যানেজিং ডিরেক্টর এফবিসিসআই), ডাক্তার মো. ইনামুর রাহমান(সংসদ সদস্য), মো. খাইরুল হক(প্রেসিডেন্ট সুনামগঞ্জ চেম্বার এন্ড কমার্স ইন্ডাস্ট্রি), মোহাম্মদ মোহসীন (চীফ এ্যাডভাইসর, ইউনিক গ্রুপ), মরিয়ম ইসপাহানি (সিইও সাজ কর্পোরেশন), হারুন অর রশিদ (জেনারেল সেক্রেটারি, বাংলাদেশ প্লাস্টিক বায়পসি সমিতি), মো. আব্দুল আজিজ (ম্যানেজিং ডিরেক্টর, নর্থ ওয়েস্ট এলপিজি লিমিটেড), আহসান আজিম (এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর, নর্থ ওয়েস্ট এলপিজি লি.), মো. শামিম আহমেদ (ডিরেক্টর নর্থ ওয়েস্ট এলপিজি লি.) ইঞ্জি. অরুন কুমার সরকার (ম্যানেজিং ডিরেক্টর, ৫এফ লি.), মো. বাকের হোসাইন (চেয়ারম্যান, ফারদিন গ্রুপ), মো. আব্দুল মান্নান (প্রোপাইটর,এম/এস জোহরা এন্টার প্রাইজ), শেখ মোহাম্মদ জাভেদ (প্রোপাইটর, জে. আর ট্রেডার্স) শফিকুল ইসলাম মাসুদ ( প্রোপাইটর এম. জে. প্লাস্টিক সেন্টার), মো. মাহাবুব আলম ( প্রোপাইটর, এম/এস মাইসা ইন্টারন্যাশনাল), সাইফুল ইসলাম নাবিব (এ্যাডভাইসর, এম/এস মাইসা ইন্টারন্যাশনাল), আবু সালাম পাভেল ( প্রোপাইটর, ট্রেড জোন)।

উল্লেখ্য, চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে ইরানের শিল্প, খনি ও বাণিজ্যমন্ত্রীর উপদেষ্টা মোহাম্মদ রেজা মওদুদীর নেতৃত্বে ১৫ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল পাঁচদিনের সফরে বাংলাদেশে এসেছিল। তখন তারা বাংলাদেশে প্রাথমিকভাবে এক বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগের আগ্রহ প্রকাশ করেছিলেন। #

 

 

  • আরো খবর জানতে নিচের লিংকে ক্লিক করুন—–

 

Print Friendly, PDF & Email

You must be logged in to post a comment Login

পেপার কর্ণার
Lastnewsbd.com
অনলাইন জরিপ
আজকের প্রশ্ন >
আর্কাইভ
মতামত
বাংলাদেশে সাংবাদিকতার সঙ্কট ও সম্ভাবনা: বর্তমান প্রেক্ষিত
।।মনজুরুল আহসান বুলবুল।। গণমাধ্যম বা সাংবাদিকত...
বিস্তারিত
সাক্ষাৎকার
সফল হওয়ার গল্প, সাফল্যের পথ
।।আলীমুজ্জামান হারুন।। ১৯৮১ সালে যখন নিটল মটরসের য...
বিস্তারিত
জেলার খবর
Rangpur

    রংপুরের খবর

  • কুড়িগ্রামে বাংলাদেশ রেলওয়ে ফ্যানস ফোরামের বৃক্ষরোপন
  • বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থ সড়ক দাবীতে কুড়িগ্রামে মানববন্ধন
  • কুড়িগ্রামে পৈতৃক সম্পত্তি রক্ষায় কৃষক পরিবারের সংবাদ সম্মেলন

[page_polls]