নড়াইলে সদর হাসপাতালে দূর্নীতি অনিয়ম, পোষা দালাল চক্র সক্রিয়
Tuesday, 13th June , 2017, 01:34 pm,BDST
Print Friendly, PDF & Email

নড়াইলে সদর হাসপাতালে দূর্নীতি অনিয়ম, পোষা দালাল চক্র সক্রিয়



উজ্জ্বল রায়, লাস্টনিউজবিডি, ১৩ জুন, নড়াইল: নড়াইলে সদর হাসপাতালে দূর্নীতি অনিয়ম অব্যবস্থপনার শেষ নেই। চিকিৎসা ব্যবস্থা দিন দিন দালালদের হাতে চলে যাচ্ছে।

হাসপাতালের চিকিৎসকদের পোষা দালালরাই যেন বেশি বেপরোয়া। হাসপাতালের সকল কার্যক্রমের নেতৃত্ব দেন তারা। দালালদের মাধ্যমেই নিতে হয় সব সেবা। কোন সাধারণ লোক হাসপাতালে গিয়ে কোন সেবা পাবার উপায় নেই। কোন সার্টিফিকেট নিতে হলেও দালালের মাধ্যমে নিতে হয়।

বৈধ ও সত্য কথা লিখে সার্টিফিকেট লিখে দিতে অনুরোধ করলে নানা অজুহাত দেখান ও নীতি কথা শোনানো হয়। অথচ দালালের মাধ্যমে টাকা দিলে নিরেট মিথ্যা আজগুবি সার্টিফেকট দিয়ে দেন খুব সহজে। স্থানীয় একটি সন্ত্রাসী চক্রকে হাত করে কয়েকজন চিকিৎসক সিন্ডিকেট করে রমরমা বাণিজ্য চালিয়ে যাচ্ছেন। ওইসব চিকিৎসকের কোন দূর্নীতি, অনিয়ম, ঘুষ ও নারী কেলেংকারীর বিষয়ে কিছু বলতে গেলে ওইসব পোষা দালাল ও সন্ত্রাসী চক্র ধেয়ে চলে আসে।

টাউট, দূর্নীতিবাজ নারী কেলেংকারির উস্তাদ ডাক্তারের পক্ষে সাফাই গাইতে থাকে। জীবন দিয়ে তারা ওই প্রতারক ডাক্তারের নিরাপত্তা দেয়। এসব সন্ত্রাসী ও দালালরা সবসময় হাসপাতালের অভ্যন্তরে ও পাশেই থাকে। দু’একজন সন্ত্রাসী আবার নিজেদের সরকারি দলের গুরুত্বপূর্ণ নেতা হিসেবে জাহির করে থাকে। জীবনে কোন দিন স্কুলে যায়নি, অথচ নিজেদের ছাত্র ও যুবলীগ নেতা পরিচয় দেন।

মুলতঃ তারা কয়েকজন বাটপার ডাক্তারের পোষা দালাল। এসব কারনে সদর হাসপাতালে রোগিরা আসতে চান না। আর যারা আসেন, তাদেরকে নানাভাবে ভুল বুঝিয়ে ভাগিয়ে নিয়ে যান দালালরা। পৌছে দেন ডাক্তারের প্রাইভেট চেম্বারে অথবা ক্লিনিকে। বিনিময়ে তারা নির্ধারিত হারে টাকা পান। হাসপাতাল সড়কে গজিয়ে উঠেছে ডজন খানেক ডায়াগোনস্টিক সেন্টার।

এসব ডায়াগোনস্টিক সেন্টারের দালালরাই হাসপাতালে ডাক্তারের চেম্বারে বসে থাকে। অনেক সময় এসব দালালরা ডাক্তারের সাথে বসে খোশ গল্প করে। অথচ রোগিদের বলা হয় স্যার ব্যস্ত আছেন। এসব দালালদের জন্য রোগিরা গোপন রোগের কথা বলতে পারেনা।
অনেক দালাল প্রকাশ্যেই ডাক্তারকে পরামর্শ দিয়ে বলেন, বস এ রোগির তো এই সমস্যা। ওনাকে এই টেষ্ট দেন। ব্যাস একথা শুনে দালালের কথায় সেই টেষ্ট লিখে দেন ডাক্তার নামের কসাই। এরপর ওই দালাল রোগিকে পটিয়ে নিয়ে যান তার ডায়াগোনস্টিক সেন্টারে। অনেক রোগিকে জোর করে টেনে হেচেড়ে নিয়ে যাওয়ার ঘটনাও রয়েছে।

ডাক্তারদের পোষা দালাল চক্র সক্রিয়হাসপাতালের ডাক্তারদের নিয়োগ দেয়া কিছু দালাল সব সময় হাসপাতালে অবস্থান করে। রোগীদের নানা কৌশলে প্রাইভেট ক্লিনিকে ভর্তি করিয়ে দেয়া হল তাদের কাজ। পুরুষ ও মহিলা দালালরা প্রতিনিয়ত রোগী ভাগিয়ে নিচ্ছে। এমআর করতে আসা রোগিদের ভাগিয়ে নিয়ে এমআর করতে গিয়ে মৃত্যু পর্যন্ত ঘটিয়েছে।

এরপরও দালালদের দৌরাত্ম কমেনি। চিহিৃত দালালদের মধ্যে রয়েছে নড়াইল পৌরসভার ভওয়াখালী এলাকার লাবনী বেগম, হনুফা,নাহার বেগমসহ অনেকে। গত ২৬ জানুয়ারী ৩ দালালকে আটক করে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দেন ভ্রাম্যামান আদালত। এদের মধ্যে হনুফা নড়াইল ডায়গোনিস্টিক সেন্টারে রোগি ভাগিয়ে নেয়ার জন্য চেষ্টা করছিল।

নোভা ডায়াগোনিস্টিক সেন্টারের মার্কেটিং ম্যানেজার তুষার নোভা ডায়াগোনিস্টিক সেন্টারের জন্য রোগি ভাগিয়ে নিচ্ছিল। এমনকি সে রোগিদের টিকিট জোর করে নিজের কাছে আটকে রেখেছিল। নড়াইল শহরের ভওয়াখালীর ইলু শেখ অনুমোদন বিহিন একটি ক্লিনিকে রোগি ভাগিয়ে নেয়ার চেষ্টা করছিণ।

আটককৃতরা জামিনে মুক্তি পেয়ে আবারও দদুর্দান্ত দাপটে দালালি করে যাচ্ছে। যানা যায়, ডাক্তার মশিউর রহমান বাবু বেশির ভাগ রোগিকে বিনা কারনে টেষ্ট করতে দেন। আর রোগিকে নিজের পছন্দের ডায়াগোনস্টিক সেন্টারে পাঠান। ডাক্তার আব্দুল কাদের জসীমের বিরূদ্ধেও রয়েছে অন্তহীন অভিযোগ। তবে বিস্তর অভিযোগ উঠেছে আরএমও সুজল কুমার বক্সী’র বিরূদ্ধে।

তিনি আরএমও হিসেবে দ্বায়িত্ব নেয়াস্পরে হাসপতালে নাজুক অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। দূর্নীতি, অনিয়ম ও দালালের দৌরাত্ম আশংকাজনক হারে বেড়েছে।

হাসপাতালের কর্মকর্তা কর্মচারী ও রোগিরা অভিযোগ করে বলেন, আরএমও সুজল কুমার বক্সী নিজেই চিহিৃত দালালদের নিয়ে খোশ গল্পে মেতে থাকেন। তিনি নিজেই দালাল দ্বারা প্রভাবিত হন। সচেতন মহলের অভিমত হাসপাতাল দালাল মুক্ত না হলে সাধারণ মানুষ সেবা পাবে না। আর এর জন্য ডাক্তারদের সেবার মানুষিকতা নিয়ে আরোও আন্তরিক হওয়া প্রয়োজন। ছবি সংযুক্ত

লাস্টনিউজবিডি/আই/আর

 

 

Print Friendly, PDF & Email

Comments are closed

পেপার কর্ণার
Lastnewsbd.com
অনলাইন জরিপ
আজকের প্রশ্ন >

মার্কিন টিকা প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান মডার্নার দাবি করেছেন অত্যধিক ঝুঁকিপূর্ণ রোগীর ওপর এ টিকা ১০০ শতাংশ কাজ করেছে। আপনি কি শতভাগ ফলপ্রসু মনে করেন?

View Results

Loading ... Loading ...
আর্কাইভ
মতামত
যুবলীগের নতুন নেতৃত্বঃ পরশের পরশ ছোঁয়ায় জেগে উঠুক কোটি তরুণ
।।মানিক লাল ঘোষ।।"আমার চেষ্টা থাকবে যুব সমাজ যেনো...
বিস্তারিত
সাক্ষাৎকার
সফল হওয়ার গল্প, সাফল্যের পথ
।।আলীমুজ্জামান হারুন।। ১৯৮১ সালে যখন নিটল মটরসের য...
বিস্তারিত
জেলার খবর
Rangpur

    রংপুরের খবর

  • দিবালোকে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের জমি দখলের অভিযোগ
  • রেলের উচ্ছেদ হওয়া ১৫০ পরিবারের পূণর্বাসন বন্দোবস্ত
  • বিরল প্রজাতির শুকুন পাখি উদ্ধার

মার্কিন টিকা প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান মডার্নার দাবি করেছেন অত্যধিক ঝুঁকিপূর্ণ রোগীর ওপর এ টিকা ১০০ শতাংশ কাজ করেছে। আপনি কি শতভাগ ফলপ্রসু মনে করেন?

  • হ্যা (100%, ১ Votes)
  • না (0%, ০ Votes)
  • মতামত নাই (0%, ০ Votes)

Total Voters:

Start Date: ডিসেম্বর ১, ২০২০ @ ১২:৫১ অপরাহ্ন
End Date: No Expiry

ফাইজার, অক্সফোর্ড, রাশিয়ান, চায়নার ভ্যাকসিনগুলোকে আপনি কি করোনা প্রতিরোধক কার্যকর টিকা বলে মনে করেন?

  • না (67%, ২ Votes)
  • মতামত নাই (33%, ১ Votes)
  • হ্যা (0%, ০ Votes)

Total Voters:

Start Date: নভেম্বর ২৯, ২০২০ @ ৫:২৮ অপরাহ্ন
End Date: No Expiry

ফাইজার, অক্সফোর্ড, রাশিয়ান ইন, চায়না ভ্যাকসিনগুলোকে আপনি কি করোনা প্রতিরোধক কার্যকর টিকা বলে মনে করেন?

  • হ্যা (0%, ০ Votes)
  • না (0%, ০ Votes)
  • মতামত নাই (100%, ০ Votes)

Total Voters:

Start Date: নভেম্বর ২৯, ২০২০ @ ৪:৫৭ অপরাহ্ন
End Date: No Expiry

কোন দেশের কোন কোম্পনীর করোনা ভ্যাকসিন আপনার পছন্দের এবং কার্যকর বলে মনে করেন ?

  • হ্যা (100%, ১ Votes)
  • না (0%, ০ Votes)
  • মতামত নাই (0%, ০ Votes)

Total Voters:

Start Date: নভেম্বর ২৯, ২০২০ @ ৮:৫৮ পূর্বাহ্ন
End Date: No Expiry

আপনি কি মনে করেন বাসে আগুন দিয়ে কি সরকার পরিবর্তন করা যাবে ?

  • না (63%, ১৫ Votes)
  • হ্যা (29%, ৭ Votes)
  • মতামত নাই (8%, ২ Votes)

Total Voters: ২৪

Start Date: নভেম্বর ১৩, ২০২০ @ ২:৫৪ অপরাহ্ন
End Date: No Expiry

 Page ১ of ২  ১  ২  »